ঢাকা, বুধবার , ১৮ জুলাই ২০১৮, | ৩ শ্রাবণ ১৪২৫ | ৫ জিলক্বদ ১৪৩৯

পুঁজিবাজারে ঈদের পর সূচক শুধু বাড়ছে

ঈদ ছুটি শেষে একদিনের ব্যতিক্রম বাদে বেড়েই চলেছে ঢাকা পুঁজিবাজারের সূচক।  ছুটির পর একদিন ছাড়া রোববার পর্যন্ত চার কর্মদিবসে সূচকের চাঙ্গাভাব লক্ষণীয়। সোমবারও এ বাড়তি প্রবণতা বজায় থাকার আশা করছে পুঁজিবাজার।

এ সময়ে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ১৮০ পয়েন্ট বেড়েছে। একই সময়ে ডিএসইতে লেনদেন পাঁচশ কোটি কোটি থেকে বেড়ে আটশ কোটি হয়েছে।

পুঁজিবাজার সংশ্লিষ্টরা মনে করছেন, ঈদের পর বিক্রির চাপ কমে যাওয়া এবং সুদের হার কমার খবরেই সূচক বাড়ছে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সাবেক সভাপতি শাকিল রিজভী বলেন, ‘ঈদের আগে সবাই টাকা পুঁজিবাজার থেকে বের করতে চায়। ঈদ শেষে বিক্রির চাপ কমে গেছে। তাছাড়া ব্যাংকের সুদের হার কমার একটা আওয়াজ আছে। দুটে মিলে পুঁজিবাজারে শেয়ারের দাম বাড়ছে।’ তার মতে এই বৃদ্ধি দীর্ঘ মেয়াদী হবে কিনা তা নির্ভর করবে ব্যাংকের সুদে হার আসলে কমল কিনা তার ওপর।’

রোববার ডিএসইর প্রধান সূচক বা ডিএসইএক্স প্রায় ৮০ পয়েন্ট বেড়ে প্রায় পাঁচ হাজার ৫২১ পয়েন্টে অবস্থান করে। এদিন দেশের প্রধান এই পুঁজিবাজারে লেনদেন হয়েছে ৭১১ কোটি ৫৪ লাখ টাকা, যা আগের দিনের চেয়ে ১৪৭ কোটি ১৯ লাখ টাকা কম।

ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ৩৪০টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৯৩টির, কমেছে ১০০টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৭টির।

রোববার ডিএসইএস বা ডিএসই শরিয়াহ সূচক ১৫ দশমিক ৪২ পয়েন্ট বেড়ে প্রায় এক হাজার ২৭৮ পয়েন্টে এবং ডিএস৩০ সূচক ২৮ দশমিক ৬১ পয়েন্ট বেড়ে প্রায় দুই হাজার ১০ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

অন্যদিকে রোববার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ১৫ কোটি ৩৫ লাখ টাকা বেড়ে ৫৬ কোটি ৩৪ লাখ টাকার শেয়ার হাতবদল হয়েছে। লেনদেনে থাকা ২৫১টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৩৯টির, কমেছে ৮০টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ৩২টির দর।

দিন শেষে সিএসই সার্বিক সূচক সিএএসপিআই প্রায় ১৯৬ পয়েন্ট বেড়ে ১৬ হাজার ৯৮২ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আজ ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে সূচকের প্রবণতা কি হয় তাই দেখার বিষয়।


%d bloggers like this: