ঢাকা, শনিবার , ২৬ মে ২০১৮, | ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ | ১০ রমযান ১৪৩৯

সম্পদশালী দশ পর্ননায়িকা!

পর্নস্টার

টপটেন ডেস্ক ● বিগত কয়েক দশকে পর্নোগ্রাফি উৎপাদন তথা ভোগ্যপণ্য হিসেবে ভোগকে কেন্দ্র করে একটি বিরাট শিল্প গড়ে উঠেছে। মূলত ভিসিআর, ডিভিডির উপর ভর করে হলেও হালে ইন্টারনেটের ব্যাপক ব্যবহার এবং যৌন বিষয়বস্তুর প্রদর্শনে সমাজের অধিকতর উদার মনোভাব এই শিল্প গড়ে ওঠার অন্যতম কারণ। পর্নোগ্রাফিবিগত কয়েক দশকে পর্নোগ্রাফি উৎপাদন তথা ভোগ্যপণ্য হিসেবে ভোগকে কেন্দ্র করে একটি বিরাট শিল্প গড়ে উঠেছে। মূলত ভিসিআর, ডিভিডি ও ইন্টারনেটের ব্যাপক ব্যবহার এবং যৌন বিষয়বস্তুর প্রদর্শনে সমাজের অধিকতর উদার মনোভাব এই শিল্প গড়ে ওঠার অন্যতম কারণ।

পর্নোগ্রাফিতে সাধারণত নারী অভিনেত্রীরাই প্রধান চরিত্রে থাকেন। এইসব অভিনেত্রীদের পর্নস্টার বা পর্ননায়িকা বলা হয়। মূলধারার অভিনেতা-অভিনেত্রীদের তুলনায় এদের অভিনয়ের গুণমানও সাধারণত পৃথক হয়। শখের পর্নোগ্রাফি এই শিল্পের জনপ্রিয় একটি ধারা এবং তা ইন্টারনেটের মাধ্যমে বিনামূল্যে বিতরিত হয়ে থাকে। তবে ইন্টারনেট থেকে দর্শক বিনা মূল্যে দেখতে পেলেও এর মাধ্যমে আর্থিকভাবে লাভবান হন পর্নইন্ডাস্ট্রিগুলো।

সারাবিশ্বে এখন পর্ন ইন্ডাস্ট্রির রমরমা বাজার। পর্ণনায়িকারাও রাতারাতি হয়ে উঠছেন অঢেল সম্পত্তির মালিক। তাই আয় এবং সম্পত্তির পরিমানের দিকে চোখ রাখলেই সহজে বোঝা যায় পর্ণনায়িকাদের মধ্যে কার চাহিদা কত বেশি। সম্প্রতি একটি জরিপে উঠে এসেছে বিশ্বের এমনই দশজন পর্ণনায়িকার নাম। যার সাত নম্বরে রয়েছেন বর্তমানে বলিউডের ব্যস্ত নায়িকা সানি লিয়ন। শীর্ষে জেনা জেমসন।

জেনা জেমসন : সম্পত্তির পরিমাণ ৩০ মিলিয়ন ডলার।

টেরা প্যাট্রিক : সম্পত্তির পরিমাণ ১৫ মিলিয়ন ডলার।

জেসি জেন : সম্পত্তির পরিমাণ ৮ মিলিয়ন ডলার।

ব্রি অলসন : সম্পত্তির পরিমাণ ৫ মিলিয়ন ডলার।

জেনা হেজ : সম্পত্তির পরিমাণ ৩.৭ মিলিয়ন ডলার।

সাশা গ্রে : সম্পত্তির পরিমাণ ৩ মিলিয়ন ডলার।

সানি লিয়ন : সম্পত্তির পরিমাণ ২.৫ মিলিয়ন ডলার।

লিসা অ্যান : সম্পত্তির পরিমাণ ২ মিলিয়ন ডলার।

আসা আকিরা : সম্পত্তির পরিমাণ ১.৫ মিলিয়ন ডলার।

নিকি বেঞ্জ

নিকি বেঞ্জ : সম্পত্তির পরিমাণ ১ মিলিয়ন ডলার।

আজ/ই/এসএ/৩০২